ইসলামী আইন ও বিচার পত্রিকা (Online ISSN 2518-9530; ISSN-1813-0372) বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক নিবন্ধিত (রেজি. নং: DA-6100) বাংলাদেশ ইসলামিক ল’ রিসার্চ এন্ড লিগ্যাল এইড সেন্টার-এর একটি ত্রৈমাসিক একাডেমিক রিসার্চ জার্নাল। যা প্রতি তিন মাস অন্তর, (জানুয়ারি-মার্চ, এপ্রিল-জুন, জুলাই-সেপ্টেম্বর, অক্টোবর-ডিসেম্বর) নিয়মিত প্রকাশিত হয়। এ জার্নালে জড়িত রয়েছেন একটি দক্ষ এডিটরিয়াল বডি, অভিজ্ঞ সম্পাদনা পরিষদ এবং জাতীয় ও আন্তর্জাতিক শিক্ষাবিদগণের সমন্বয়ে একটি উচ্চ ক্ষমতাসম্পন্ন এডভাইজারি বোর্ড। পত্রিকাটি দেশের অধিকাংশ সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় এবং উচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সংশ্লিষ্ট বিভাগে গবেষণা পত্রিকা হিসেবে স্বীকৃত। একে আন্তর্জাতিক মানের গবেষণা জার্নালে উন্নীত করার লক্ষ্যে প্রিন্ট ভার্সনের পাশাপাশি অনলাইন ভার্সনও শুরু হয়েছে। এমতাবস্থায় জার্নালে প্রকাশের জন্য দেশ-বিদেশের বাংলাভাষী শিক্ষাবিদ, আইনবিদ, অধ্যাপক ও গবেষকগণকে গবেষণা প্রবন্ধ/বুক রিভিউ প্রেরণের অনুরোধ করা হচ্ছে।
প্রবন্ধ প্রণয়নের উদ্দেশ্য
প্রবন্ধ প্রণয়নের ক্ষেত্রে নিম্নোক্ত উদ্দেশ্যসমূহ বিবেচনায় আনতে হবে:
ক. আইন ও বিচারসহ সামগ্রিক ইসলামী বিধান সম্পর্কে জনমনে আগ্রহ সৃষ্টি করা ও গণসচেতনতা তৈরি করা;
খ. ইসলামী জীবনবিধান সম্পর্কে পুঞ্জিভূত বিভ্রান্তি দূর করা;
গ. মুসলিম শাসনামলের ইসলামী আইন ও বিচারের প্রায়োগিক চিত্র তুলে ধরা;
ঘ. সমসাময়িক ও নতুন নতুন সমস্যার ইসলামী সমাধান উপস্থাপন;
ঙ. সমাজের সর্বস্তরে ইনসাফ ও মানবাধিকার নিশ্চিত করার লক্ষ্যে প্রচলিত ব্যবস্থার ঘাটতি ও ত্রুটিগুলো চিহ্নিত করে সংস্কারের সুপারিশ পেশ।
প্রবন্ধের বিষয়বস্তু
(১) এ জার্নালে ইসলামের অর্থনীতি, সমাজনীতি, রাষ্ট্রনীতি, আইনতত্ত্ব, বিচারব্যবস্থা, ব্যাংক, বীমা, শেয়ারব্যবসা, আধুনিক ব্যবসায়-বাণিজ্য, ফিক্হশাস্ত্র, ইসলামী আইন, মুসলিম শাসকদের বিচারব্যবস্থা, মুসলিম সমাজ ও   বিশ্বের সমসাময়িক সমস্যা ও এর ইসলামী সমাধান এবং তুলনামূলক আইনী ও ফিকহী পর্যালোচনামূলক প্রবন্ধকে গুরুত্ব দেয়া হয়।
(২) জার্নালে সর্বোচ্চ ২০০০ শব্দে গুরুত্বপূর্ণ ডকুমেন্টারি গ্রন্থ পর্যালোচনাও প্রকাশ করা হয়। এ ক্ষেত্রে ইসলামী আইন ও বিচার বিষয়ক গ্রন্থ অগ্রাধিকার দেয়া হয়।
প্রবন্ধের ভাষা ও বানান রীতি
   * প্রবন্ধটি বাংলা ভাষায় রচিত হতে হবে। তবে প্রয়োজনে ভিন্ন ভাষার উদ্ধৃতি প্রদান করা যাবে।
   * প্রবন্ধ রচনার ক্ষেত্রে বাংলা একাডেমি প্রণীত প্রমিত বাংলা বানানের নিয়ম অনুসরণ করতে হবে, তবে আরবী শব্দের ক্ষেত্রে ইসলামী ভাবধারা অক্ষুণ্ন রাখতে হবে।
পাণ্ডুলিপি তৈরি
   * পাণ্ডুলিপি অবশ্যই লেখক/লেখকগণের মৌলিক গবেষণা (Original Research) হতে হবে। অন্যের লেখা থেকে গৃহীত উদ্ধৃতির পরিমাণ প্রবন্ধের একচতুর্থাংশের কম হতে হবে।
   * যৌথ রচনা হলে আলাদা পৃষ্ঠায় লেখকগণের কে কোন অংশ রচনা করেছেন বা প্রবন্ধ প্রণয়নে কার অবদান কতটুকু তার বিবরণ দিতে হবে।
   * প্রবন্ধের শব্দসংখ্যা সর্বনিম্ন ৩০০০ (তিন হাজার) এবং সর্বোচ্চ ৮০০০ (আট হাজার) এর মধ্যে হতে হবে।
   * কম্পিউটার কম্পোজ করার জন্য বাংলা বিজয় কী-বোর্ড এর Sutonny MJ অথবা ইউনিকোড কী-বোর্ড Solaimanlipi এর ফন্ট ব্যবহার করতে হবে।
প্রবন্ধের কাঠামো
   * সারসংক্ষেপ: প্রবন্ধের শুরুতে ১০০-১৫০ শব্দের মধ্যে একটি সারসংক্ষেপ (Abstract) থাকতে হবে। এ সারসংক্ষেপে প্রবন্ধের উদ্দেশ্য, প্রবন্ধে ব্যবহৃত গবেষণা পদ্ধতি ও গবেষণান্তে প্রাপ্ত ফলাফল সম্পর্কে ইঙ্গিত থাকবে।
   * মূলশব্দ: সর্বাধিক ৫টি মূলশব্দ (Keywords) উল্লেখ করতে হবে।
   * ইংরেজি অনুবাদ: প্রবন্ধের শিরোনাম, লেখকের নাম, সারসংক্ষেপ ও মূলশব্দ বাংলার পাশাপাশি ইংরেজি অনুবাদও দিতে হবে।
   * ভূমিকা: প্রবন্ধের ভূমিকায় বিষয়ের গুরুত্ব, তাৎপর্য ও প্রবন্ধ রচনার যৌক্তিকতা সংক্ষেপে উপস্থাপন করতে হবে।
   * মূল আলোচনা: মূল আলোচনায় অবশ্যই লেখকের নিজস্ব চিন্তার প্রতিফলন ঘটবে এবং প্রবন্ধের বিষয়বস্তু কেন্দ্রিক হতে হবে। প্রবন্ধ প্রণয়নের ক্ষেত্রে পূর্বের সাহিত্য কর্ম থেকে কোন সহযোগিতা নেয়া হলে বস্তুনিষ্ঠতার সাথে যথাযথ উদ্ধৃতি প্রদান করতে হবে। প্রবন্ধে অনুসৃত গবেষণা পদ্ধতি অনুযায়ী যথার্থ ব্যাখ্যা-বিশ্লেষণ অন্তর্ভুক্ত হতে হবে।
   * উপসংহার: প্রবন্ধ থেকে প্রাপ্ত ফলাফল, বর্তমান প্রেক্ষাপটে তা বাস্তবায়নের গুরুত্ব ও উপকারিতা এবং আইনের ইসলামিকরণে এর ভূমিকা ও সুপারিশ তুলে ধরতে হবে।